মহেশপুরের যাদবপুরে এমপি সালাহউদ্দিন মিয়াজীর মতবিনিময় 

আগের সংবাদ

স্মৃতি বিজারিত নজরুল

পরের সংবাদ

এমপির পরিদর্শনে টনকনড়েছে বাঁশখালী স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স কর্তৃপক্ষের

প্রকাশিত: জানুয়ারি ১৮, ২০২৪ , ১২:৫৪ অপরাহ্ণ আপডেট: জানুয়ারি ১৮, ২০২৪ , ১২:৫৫ অপরাহ্ণ

চট্টগ্রাম-১৬ বাঁশখালী আসনে স্বদ্যবিজয়ী এমপি চট্টগ্রাম দক্ষিণ জেলা আওয়ামী লীগের সহ-সভাপতি মু‌জিবুর রহমান সিআইপি উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স হাসপাতালে আকষ্মিক পরিদর্শনকালে নির্ধারিত সময়ে দেখা মেলেনি ডাক্তার -নার্সদের। এরপর থেকে টনকনড়েছে কতৃপক্ষের।

১৮ জানুয়ারি (বৃহস্পতিবার) সকালে সরেজমিনে পরিদর্শনকালে হাসপাতাল পরিস্কার -পরিচ্ছন্ন রাখতে পরিচ্ছন্ন কর্মীদের তৎপরতা দেখা গেছে। এমপির আকষ্মিক হানায় হাসপাতাল কতৃপক্ষের টনকনড়েছে বলে জানিয়েছে রোগীর স্বজনরা।

গত মঙ্গলবার সকাল ৮ টায় কোন ধরনের প্রটোকল ছাড়াই গাড়ী থেকে নেমে আকষ্মিক ভাবে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স হাসপাতালে ঢুকে পড়েন নবনির্বাচিত এমপি মুজিবুর রহমান সিআইপি। প্রথমে জরুরি বিভাগে গিয়ে দেখেন,নির্ধারিত সময়ে ডাক্তার -নার্সদের কেউ উপস্থিত হননি। পরে সালাম দিতে দিতে ওয়ার্ডে ওয়ার্ডে গিয়ে হাসপাতালে থাকা রোগীদের বলেন, (ওয়া আঁই অনেরার পোয়া মুজিব আশ্বিদি, অনেরারে চাইবেল্লাই)। হাসপাতাল কতৃপক্ষ যদি চিকিৎসা দিতে হনো ধরনের অবহেলা গরে সাথে সাথেই আঁরে ফোন গরিবান। এডে আঁর মোবাইল নাম্বার দি যাইয়্যুম। এসব কথা বলেন এমপি মুজিব সিআইপি।

নতুন এমপির উপস্থিতির খবর পেয়ে তাড়াহুড়া করে নির্ধারিত সময়ের পরে হাসপাতালে এসে পৌঁছান হাসপাতাল কর্মকর্তাসহ সংশ্লিষ্টরা। তাঁদের সাথে কথা বলেন তিনি, ডাক্তার -নার্সরা নির্ধারিত সময়ে হাসপাতালে উপস্থিতি না হলে ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে জানিয়ে যথাসময়ে হাসপাতালে উপস্থিতি নিশ্চিত করণ , হাসপাতালের পরিস্কার-পরিচ্ছন্নতা বজায় রাখা ও চিকিৎসার মান উন্নয়ন আরো বাড়ানোর তাগিদসহ বিভিন্ন দিকনির্দেশনা মুলক পরামর্শ দেন তিনি। এসময় তিনি হাসপাতালে থাকা রোগীদের কিছু অর্থ সহায়তা প্রদান করেছে বলেও প্রত্যক্ষদর্শী ও হাসপাতাল সূত্রে জানা গেছে।

সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেইসবুকে জুড়ে হাসপাতাল পরিদর্শনের ভাইরালকৃত এক ভিডিওতে দেখা যায়, নির্ধারিত সময়ে হাসপাতালে ডাক্তার -নার্সদের উপস্থিতি না দেখে ক্ষোভ প্রকাশ করেন এমপি। এছাড়াও হাসপাতালের ওয়ার্ডের বেটসীট কাপড় ও টয়লেট অপরিচ্ছন্নতা দেখতে পান তিনি। এতে ক্ষুব্ধ হয়ে হাসপাতাল সংশ্লিষ্ট ডাক্তার -নার্সদের উদ্দেশ্যে বলেন, হাসপাতালের টয়লেট অপরিচ্ছন্ন কেন? রোগীদের সীটের কাপড় গুলো এতই অপরিস্কার কেন? এইসব বিষয়ে জানতে চান তিনি। নির্ধারিত সময়ে ডাক্তার -নার্সদের উপস্থিত থাকার কথা থাকলেও সকাল ৮ টা ৪০ মিনিট পর্যন্ত যারা হাসপাতালে আসেনি তাদের নামসহ অনুপস্থিতির বিষয়টি লিখে রাখার জন্যে হাসপাতাল রেজিস্ট্রারকে নির্দেশ দেন।

জানা যায়, নির্বাচনের পূর্বে জনগণকে বাঁশখালীর অবকাঠামো উন্নয়ন,শিক্ষা ও স্বাস্থ্যসেবা উন্নয়নসহ নানাবিধ প্রতিশ্রুতি দেন তিনি। এরই প্রেক্ষিতে সংসদ সদস্য হিসেবে শপথ গ্রহণের পর থেকে বাঁশখালীর বিভিন্ন শিক্ষা প্রতিষ্ঠান পরিদর্শনসহ স্বাস্থ্যসেবার মান যাচাইয়ের লক্ষ্যে মঙ্গলবার সকালে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স হাসপাতাল পরিদর্শনে যান এমপি মুজিবুর রহমান সিআইপি। এছাড়াও পৌরসভার বাহার উল্লাহ পাড়ায় সম্প্রতি অগ্নিকাণ্ডে ক্ষতিগ্রস্তদেরও দেখতে যান তিনি।

বিষয়টি সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ভাইরাল হওয়াতে তাঁর এমন উদ্যোগকে স্বাগত জানান বিভিন্ন মহল। হাসপাতালে চিকিৎসাধীন থাকা রোগীদের বেশ কয়েকজন স্বজনের সাথে কথা বলে জানা যায়, নতুন এমপির আকষ্মিক পরিদর্শনের পর টনক নড়েছে সংশ্লিষ্টদের। বেড়েছে চিকিৎসা সেবা তৎপরতা, হাসপাতাল পরিস্কার -পরিচ্ছন্ন রাখতে তৎপর বেড়েছে পরিচ্ছন্ন কর্মীদের।

উল্লেখ্য,গত ৭ জানুয়ারি দ্বাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচন অনুষ্ঠিত হয়, এতে স্বতন্ত্র প্রার্থী হিসেবে ঈগল প্রতীক নিয়ে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করেন চট্টগ্রাম দক্ষিণ জেলা আওয়ামী লীগের সহ-সভাপতি মুজিবুর রহমান সিআইপি। এতে নিকটতম প্রতিদ্বন্দ্বী প্রার্থীকে বিপুল ভোটের ব্যবধানে হারিয়ে জয়ী হন তিনি।

বাঁশখালী উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স হাসপাতাল কর্মকর্তা ডাঃ শফিউর রহমান মজুমদার বিষয়টি নিশ্চিত করে জানান, হ্যাঁ তিনি আসছিলেন, ডিউটির ডাক্তার ও নার্সদের উপস্থিতির বিষয়ে তিনি কিছু কথাবার্তা বলেছেন, এছাড়াও হাসপাতালে চিকিৎসা সেবার মান উন্নয়ন বাড়াতে ঘাটতি থাকা চিকিৎসা সরঞ্জামাদি পূরণ করার আশ্বস দিয়েছেন বলেও জানান শফিউর।

মন্তব্য করুন

খবরের বিষয়বস্তুর সঙ্গে মিল আছে এবং আপত্তিজনক নয়- এমন মন্তব্যই প্রদর্শিত হবে। মন্তব্যগুলো পাঠকের নিজস্ব মতামত, রুপান্তর প্রতিদিন এর দায়ভার নেবে না।

জনপ্রিয়