দূতাবাসের ৯ কর্মকর্তাসহ উপসচিব হলেন ২৪০ জন

আগের সংবাদ

খালি পেটে আদা খাওয়ার সেরা ৫ উপকারিতা

পরের সংবাদ

তেলেগু অভিনেতা চন্দ্রমোহন আর নেই

প্রকাশিত: নভেম্বর ১১, ২০২৩ , ১১:১১ পূর্বাহ্ণ আপডেট: নভেম্বর ১১, ২০২৩ , ১১:১১ পূর্বাহ্ণ

না-ফেরার দেশে পাড়ি জমালেন তেলেগুর জনপ্রিয় অভিনেতা চন্দ্রমোহন। শনিবার (১১ নভেম্বর) সকাল ৯টা ৪৫মিনিটে শেষ নিশ্বাস ত্যাগ করেন অভিনেতা। মৃত্যুকালে অভিনেতার বয়স হয়েছিল ৮২।

জানা গেছে, হায়দরাবাদের অ্যাপোলো হাসপাতালে হৃদরোগে আক্রান্ত হয়ে মারা যান চন্দ্রমোহন। অভিনেতার মৃত্যুর খবরটি গণমাধ্যমে নিশ্চিত করেছেন পরিবারের একজন সদস্য।

তিনি বলেন, বয়সজনিত সমস্যার কারণে বেশ কিছুদিন ধরেই অসুস্থ ছিলেন চন্দ্রমোহন। অ্যাপোলো হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থাতেই সকাল মারা গেছেন। আগামী ১৩ নভেম্বর হায়দরাবাদে অভিনেতার শেষকৃত্য সম্পন্ন হবে।

 

জানা গেছে, তেলেগু এবং তামিল ভাষায় ৯ শতাধিক সিনেমায় অভিনয় করেছেন চন্দ্রমোহন৷ ১৯৬৬ সালে ‘রঙ্গুলা রত্নম’ চলচ্চিত্রের মাধ্যমে তেলেগু ইন্ডাস্ট্রিতে পরিচিতি পান। চলচ্চিত্রে অভিনয়ের জন্য শ্রেষ্ঠ অভিনেতা হিসেবে রাজ্য নন্দী পুরস্কার অর্জন করেন চন্দ্রমোহন।

 

১৯৭০-১৯৮০ দশকে কম বাজেটের চলচ্চিত্রের জন্য একজন নির্ভরযোগ্য প্রধান অভিনেতা ছিলেন চন্দ্রমোহন। এমন ধারণাও ছিল যে একজন অভিনেত্রী যদি ক্যারিয়ারে প্রাথমিক পর্যায়ে তার সঙ্গে আত্মপ্রকাশ করেন বা তার সঙ্গে কাজ করেন তবে তিনি একজন অভিনেত্রী হিসাবে আরও বেশি খ্যাতি অর্জন করবেন। শ্রীদেবী, জয়াপ্রদা এবং রাধিকা ছিলেন সেই সময়ের সেরা উদাহরণ।

 

এ ছাড়া ১৯৭৮ সালে ‘পাদাহারেল্লা ভায়াসু’ এবং ‘সিরি সিরি মুভভা’ সিনেমায় অভিনয়ের জন্য ফিল্মফেয়ার সেরা অভিনেতার পুরস্কার পান চন্দ্রমোহন৷ তিনি চলচ্চিত্রের জন্য শ্রেষ্ঠ চরিত্র অভিনেতা এবং কৌতুক অভিনেতা হিসাবে নন্দী পুরষ্কারও পেয়েছিলেন৷ অভিনেতার মৃত্যুতে শোকস্তব্ধ বিনোদন ইন্ডাস্ট্রি৷ মৃত্যুর সময় স্ত্রী এবং দুই কন্যাকে রেখে গেছেন চন্দ্রমোহন।

মন্তব্য করুন

খবরের বিষয়বস্তুর সঙ্গে মিল আছে এবং আপত্তিজনক নয়- এমন মন্তব্যই প্রদর্শিত হবে। মন্তব্যগুলো পাঠকের নিজস্ব মতামত, রুপান্তর প্রতিদিন এর দায়ভার নেবে না।

জনপ্রিয়